উচ্চাঙ্গসংগীত উৎসবের ৫ দিনের সূচি

পাঁচ দিনব্যাপী বেঙ্গল উচ্চাঙ্গসংগীত উৎসবের আর মাত্র এক সপ্তাহ বাকি। এ মাসের ২৬ থেকে ৩০ তারিখ প্রতিদিন সন্ধ্যা ৭টা থেকে ভোর ৫টা পর্যন্ত ধানমন্ডির আবাহনী মাঠে এ অনুষ্ঠানে সংগীত পরিবেশন করবেন দেশি ও বিদেশি প্রখ্যাত শিল্পীবৃন্দ।

পাশ্চাত্যের ধ্রুপদী ধারার সংগীত দিয়ে শুরু করে উৎসবের সমাপ্তি ঘটবে পণ্ডিত হরিপ্রসাদ চৌরাসিয়ার বাঁশির সুরে। এর মাঝে আছে সেতার, সরোদ, খেয়াল, ধ্রুপদ ও নৃত্য। উপমহাদেশের শ্রেষ্ঠতম শিল্পীরা সংগীত পরিবেশন করতে আসছেন ডিসেম্বরের শেষ সপ্তাহে।

জেনে নেওয়া যাক কে কবে কী পরিবেশন করবেন-

 

প্রথম দিন: মঙ্গলবার, ২৬ ডিসেম্বর

অর্কেস্ট্রা- ড. এল সুব্রামানিয়ম এবং আসতানা সিম্ফনি ফিলহারমোনিক

সরোদ- রাজরূপা চৌধুরী

খেয়াল- বিদুষী পদ্মা তালওয়ালকর

সেতার- ফিরোজ খান

খেয়াল- সুপ্রিয়া দাস, বেঙ্গল পরম্পরা সংগীতালয়

বাঁশি- রাকেশ চৌরাসিয়া

সেতার- পূর্বায়ন চ্যাটার্জি

 

দ্বিতীয় দিন: বুধবার, ২৭ ডিসেম্বর

কত্থক নৃত্য- অদিতি মঙ্গলদাস ড্যান্স কোম্পানি

তবলা- বেঙ্গল পরম্পরা সংগীতালয়

সন্তুর- পণ্ডিত শিবকুমার শর্মা

খেয়াল- পণ্ডিত উলহাস কশলকর

সেতার- ওস্তাদ শাহিদ পারভেজ খান

ধ্রুপদ- অভিজিত কুণ্ড, বেঙ্গল পরম্পরা সংগীতালয়

বাঁশি- পণ্ডিত রনু মজুমদার

সরোদ- পণ্ডিত দেবজ্যোতি বোস

 

তৃতীয় দিন: বৃহস্পতিবার ২৮ ডিসেম্বর

সেতার- বেঙ্গল পরম্পরা সংগীতালয়

ঘাটম ও কঞ্জিরা- বিদ্বান ভিক্ষু বিনায়ক রাম ও সেলভাগণেশ বিনায়ক রাম

খেয়াল- সরকারি সংগীত কলেজ

সরোদ- আবির হোসেন

বাঁশি- গাজী আবদুল হাকিম

ধ্রুপদ- পণ্ডিত উদয় ভাওয়ালকর

বেহালা- বিদুষী কালা রামনাথ

খেয়াল- পণ্ডিত অজয় চক্রবর্তী

 

চতুর্থ দিন: শুক্রবার, ২৯ ডিসেম্বর

মনিপুরি, ভরতনাট্যম এবং কত্থক নৃত্য- সুইটি দাস, অমিত চৌধুরী, স্নাতা শাহরিন, সুদেষ্ণা স্বয়মপ্রভা,

মেহরাজ হক এবং জুয়াইরিয়াহ মৌলি

সরোদ- বেঙ্গল পরম্পরা সংগীতালয়

খেয়াল- ওস্তাদ রশিদ খান

সরোদ- পণ্ডিত তেজেন্দ্রনারায়ণ মজুমদার এবং

বেহালা- ড. মাইশুর মঞ্জুনাথ

খেয়াল- পণ্ডিত যশরাজ

চেলো- সাসকিয়া রাও দ্য-হাস

সেতার- পণ্ডিত বুদ্ধাদিত্য মুখার্জি

 

পঞ্চম দিন: শনিবার, ৩০ ডিসেম্বর

ওড়িশি নৃত্য- বিদুষী সুজাতা মহাপাত্র

মোহন বীণা- পণ্ডিত বিশ্বমোহন ভট্ট

খেয়াল- ব্রজেশ্বর মুখার্জি

সেতার- পণ্ডিত কুশল দাস ও কল্যাণজিত দাস

সেতার- পণ্ডিত কৈবল্যকুমার

বাঁশি- পণ্ডিত হরিপ্রসাদ চৌরাসিয়া

 

উল্লেখ্য, অনিবার্য কারণবশত কোনো রকম ঘোষণা ছাড়াই এই সময়সূচিতে পরিবর্তন আসতে পারে।