নেদারল্যান্ডসে এই প্রথম বাংলাদেশি শিল্পীদের প্রদর্শনী

নেদারল্যান্ডসের বাংলাদেশ দূতাবাসের আয়োজনে প্রথমবারের মতো শুরু হয়েছে বাংলাদেশি শিল্পীদের চিত্রকর্ম প্রদর্শনী। ৪১টি চিত্রকর্ম নিয়ে ‘দ্য শেডস অব প্যাশন’ শিরোনামের দুই সপ্তাহব্যাপী এই প্রদর্শনী গত শুক্রবার (৩০ মার্চ) রাজধানী দ্য হেগের অ্যাট্রিয়াম সিটি হলে উদ্বোধন করা হয়। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন দ্য হেগের ডেপুটি মেয়র রবিন বালদেব সিং। বিশেষ অতিথি ছিলেন বাংলাদেশের প্রখ্যাত চিত্রশিল্পী রফিকুন নবী।

উদ্বোধনী বক্তব্যে নেদারল্যান্ডসে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত শেখ মুহম্মদ বেলাল বলেন, দেশ-জাতি-সমাজ নির্বিশেষে সেতুবন্ধন তৈরিতে চিত্রশিল্পীদের অসামান্য অবদান রয়েছে। তিনি আরও বলেন, চিত্রশিল্পীদের জন্য সদা অনুপ্রেরণা স্বরূপ বিখ্যাত চিত্রশিল্পী রমব্র্যান্ড্ট, ভেরমেয়ার ও ভ্যান গঘ-এর দেশ নেদারল্যান্ডসে বাংলাদেশের শিল্পীদের চিত্রকর্মের এই প্রদর্শনীটি নিঃসন্দেহে দেশের জন্য বিরল সম্মান বয়ে এনেছে।

নেদারল্যান্ডস ও বাংলাদেশ এই দুই দেশের বদ্বীপের সাদৃশ্যকে তুলে ধরে রাষ্ট্রদূত বেলাল উভয় দেশের শিল্পী ও শিক্ষাবিদদের উভয় দেশের জন্য একটি নিরাপদ বদ্বীপ গঠনে একযোগে কাজ করার আহ্বান জানান। তিনি শিল্পী রফিকুন নবীর অমর সৃষ্টি ‘টোকাই’-এর কথা উল্লেখ করে সমাজে ক্রমবর্ধমান বৈষম্য ও অবিচারের বিরুদ্ধে দাঁড়ানোর জন্য সবাইকে আহ্বান জানান।

বিশেষ অতিথি রফিকুন নবী তার বক্তৃতায় বাংলাদেশে সমকালীন শিল্পকর্মে কীভাবে বিকাশ হচ্ছে এবং কীভাবে আমাদের সমসাময়িক শিল্পীরা এই প্রাচীন শিল্পে নতুন মাত্রা যোগ করছে তা তুলে ধরেন।

প্রধান অতিথি রবিন বালদেব সিং প্রথমবারের মতো নেদারল্যান্ডসে বাংলাদেশের চিত্রশিল্প প্রদর্শনী আয়োজনের জন্য অভিনন্দন জানান। তিনি উল্লেখ করেন, জাতি হিসেবে ডাচরা শিল্প ও সংস্কৃতির রচয়িতা, প্রকৃতপক্ষে এটি নেদারল্যান্ডসে বাংলাদেশের স্থিতিশীলতা ও শান্তির প্রদর্শনীর একটি অনন্য সুযোগ। এই প্রদর্শনীটি দুটি দেশের সম্পৃক্ততাকে আরও জোরদার করবে। তিনি আরও বলেন, শিল্প, সাহিত্য বা সংগীত সংস্কৃতির সকল ধারাতেই বাংলাদেশ এগিয়ে রয়েছে।

প্রদর্শনী উদ্বোধন করছেন অতিথিরা

বাংলাদেশি শিল্পীদের মোট চল্লিশটি চিত্রকর্ম এবং নেদারল্যান্ডসভিত্তিক বাংলাদেশি শিল্পী আনিকা আহমেদের একটি পেইন্টিং প্রদর্শিত হচ্ছে। বাংলাদেশের সংস্কৃতিবিষয়ক মন্ত্রণালয় ও বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির পৃষ্ঠপোষকতায় প্রদর্শনীটি আয়োজন করেছে বাংলাদেশ দূতাবাস। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিভিন্ন দূতাবাসের কূটনীতিক, ডাচ পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের প্রতিনিধি, ডাচ চিত্রশিল্পী, সাংবাদিক ও প্রবাসী বাংলাদেশিরা উপস্থিত ছিলেন। প্রদর্শনীটি আগামী ১৩ এপ্রিল পর্যন্ত চলবে।